নারীরা সমাজের গুরুত্বপূর্ণ অংশ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:২৫ পিএম, ০৬ সেপ্টেম্বর ২০২১
ছবি : সংগৃহীত

তালেবানের মুখপাত্র জবিউল্লাহ মুজাহিদ বলেছেন, নারীরা আমাদের সমাজের একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ। আফগানিস্তান তালেবানের নিয়ন্ত্রণে চলে যাওয়ার পর থেকেই সেখানকার নারীরা বেশ উদ্বেগ-উৎকণ্ঠায় দিন কাটাচ্ছেন। বিশেষ করে অতীতে তালেবানের শাসনামলে নারীদের যে কঠোর নিয়ম-শৃঙ্খলার মধ্য দিয়ে যেতে হয়েছে এবারও তাই হবে কীনা তা নিয়ে জল্পনা চলছে।

তালেবানের শাসনে নারীদের প্রতি কী ধরনের আচরণ করা হতে পারে সে বিষয়ে জবিউল্লাহ মুজাহিদকে প্রশ্ন করা হয়েছিল। তিনি আগের বিবৃতিরই পুণরাবৃত্তি করেছেন। তিনি বলেছেন, শরীয়া শাসনের আওতায় নারীদের অধিকার সম্মানের সঙ্গে রক্ষা করা হবে। তবে এ বিষয়ে তিনি বিস্তারিত কিছু বলেননি। তার মতে, নারীরা হচ্ছে সমাজের গুরুত্বপূর্ণ অংশ। সুতরাং তাদের সঙ্গে সেভাবেই ব্যবহার করা হবে।

এদিকে, আফগানিস্তানের পঞ্জশির উপত্যকা পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণের দাবি করেছে তালেবান। ফলে দেশটির সর্বশেষ এই অঞ্চলটিও এখন তালেবানের দখলে। রাজধানী কাবুল থেকে ১২৫ কিলোমিটার উত্তরে পঞ্জশির উপত্যকায় টানা কয়েকদিন ধরেই তালেবানের সঙ্গে ন্যাশনাল রেসিসটেন্স ফ্রন্ট অব আফগানিস্তানের (এনআরএফ) সংঘর্ষ চলছে।

তালেবানের এক মুখপাত্র বলেন, এই জয়ের মাধ্যমে দেশের পুরো নিয়ন্ত্রণ এখন আমাদের হাতে। তবে তালেবান পঞ্জশিরের পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার কথা বললেও এনআরএফ তাদের দাবি প্রত্যাখ্যান করেছে।

এনআরএফ-এর মুখপাত্র আলি মাইসাম বলেন, এটা সত্যি নয়। তালেবান পঞ্জশিরের নিয়ন্ত্রণ নেয়নি। আমি তালেবানের এই দাবি প্রত্যাখ্যান করছি। এদিকে সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া বিভিন্ন ফুটেজে দেখা গেছে প্রাদেশিক গভর্নরের ভবনের গেটের সামনে অবস্থান করছেন তালেবান যোদ্ধারা।

পঞ্জশির ছাড়া আফগানিস্তানের বাকি অঞ্চলগুলো তিন সপ্তাহ আগেই তালেবানের দখলে চলে যায়। গত ১৫ আগস্ট তালেবান আফগানিস্তানের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর পশ্চিমা সমর্থিত আফগান সরকারের পতন ঘটে।

টিটিএন/এমএস

টাইমলাইন  

করোনা ভাইরাসের কারণে বদলে গেছে আমাদের জীবন। আনন্দ-বেদনায়, সংকটে, উৎকণ্ঠায় কাটছে সময়। আপনার সময় কাটছে কিভাবে? লিখতে পারেন জাগো নিউজে। আজই পাঠিয়ে দিন - [email protected]