সেনার পোশাক-টুপিতে ভোটকেন্দ্রে রাজ্য পুলিশ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আন্তর্জাতিক ডেস্ক আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৩:৪৫ পিএম, ১১ এপ্রিল ২০১৯

তাদের গায়ে সেনা জওয়ানদের মতো জলপাই রঙের ডোরাকাটা জামা। মাথায় টুপিতে লেখা ইন্ডিয়ান আর্মি। ডিউটি করছেন ভোটকেন্দ্রে। একঝলক দেখেই মনে হবে কোনও আধা সামরিক বাহিনীর জওয়ান বুঝি। কিন্তু ভালো করে দেখলেই বোঝা যায় যে সেনাবাহিনীর পোশাকের ওই ব্যক্তিরা আসলে রাজ্য পুলিশ।

সংবাদমাধ্যমের ক্যামেরায় এমন বেশ কিছু ছবি ধরা পড়েছে। এমন ঘটনা ঘটেছে পশ্চিমবঙ্গের আলিপুরদুয়ারের বীরপাড়ায়। সেনার পোশাকে ওই রাজ্য পুলিশকর্মীদের দেখে ভোটাররা প্রথমে কেন্দ্রীয় বাহিনীর জওয়ান বলেই মনে করেছে। পরে জানা গেছে, তারা রাজ্য পুলিশ। পোশাক বিভ্রান্তির জের ধরে সামরিক বাহিনী নিয়ে ভোটারদের মনে দ্বন্দ্ব তৈরি হয়েছে। একজন রাজ্য পুলিশ কেন আধাসেনার পোশাক পরে ডিউটি করবেন এমন প্রশ্ন উঠেছে।

আলিপুরদুয়ারে মোট বুথ ১৮৩৪টি। এর মধ্যে ৫৪৪টি বুথ স্পর্শকাতর হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে। কমিশনের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, মোট ২৭ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে আলিপুরদুয়ারে। মোট ৮১৪টি বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী রয়েছে। কেন্দ্রীয় বাহিনী ছাড়া ভোট হচ্ছে ১০২০টি বুথে।

এদিকে, দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলের উপকূলীয় রাজ্য অন্ধ্রপ্রদেশে ভয়াবহ নির্বাচনী সহিংসতায় দুই জনের প্রাণহানি ঘটেছে। বৃহস্পতিবার রাজ্যের অনন্তপুর জেলার তাদিপত্রি আসনের বীরাপুরাম গ্রামে দু'টি রাজনৈতিক দলের কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে এই প্রাণহানির ঘটনা ঘটে।

দেশটির ইংরেজি দৈনিক টাইমস অব ইন্ডিয়া বলছে, অন্ধ্রপ্রদেশের দুটি আঞ্চলিক রাজনৈতিক দল তেলেগু দেশম পার্টি ও ওয়াইএসআর কংগ্রেস পার্টির কর্মী-সমর্থকরা সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েছে। এতে বীরাপুরাম গ্রামে অন্তত দু'জন নিহত ও আরো বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন।

টিটিএন/এমকেএইচ

টাইমলাইন  

আপনার মতামত লিখুন :