দুই মেয়রকে আরও দায়িত্বশীল হতে বললেন সেতুমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশিত: ০৪:২৮ পিএম, ২৪ জুলাই ২০১৯
ফাইল ছবি

ডেঙ্গু পরিস্থিতিতে ঢাকার দুই মেয়রকে আরও দায়িত্বশীল হতে বলেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

সচিবালয়ে বুধবার (২৪ জুলাই) আসন্ন ঈদুল আজহার প্রস্তুতি, বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত সড়ক-মহাসড়ক সংস্কার এবং সমসাময়িক ইস্যু নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এ কথা জানান।

বর্তমানে আওয়ামী লীগদলীয় দুই মেয়র ঢাকার দুই সিটি কর্পোরেশনের দায়িত্বে রয়েছেন। ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সাঈদ খোকন, ঢাকা উত্তর সিটির মেয়র হিসেবে রয়েছেন আতিকুল ইসলাম।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘ডেঙ্গু ভয়াবহ রূপ নিয়েছে, ঢাকার বাইরেও ডেঙ্গু ছড়িয়ে পড়ছে, প্রাণহানি ঘটছে। হাসপাতালে নতুন রোগী মানেই হচ্ছে ডেঙ্গু। এটা উদ্বেগের বিষয়, অস্বীকার করার উপায় নেই। এ বিষয়ে দুই মেয়রের সঙ্গে আলাপ হয়েছে। তারা সচেতনতার বিষয়ে ক্যাম্পেইন বিল্ড আপ করছেন, বৈঠক করছেন।’

তিনি বলেন ‘ঢাকা দক্ষিণের মেয়র জানিয়েছেন তাদের কাছে যে ওষুধ আছে তা অনেকটা অকার্যকর। কার্যকর ওষুধ আনার জন্য আমরা চেষ্টা করছি। স্বাস্থ্যমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলেছি, তারা যাতে ওষুধ সিলেকশনের ব্যাপারে সিটি কর্পোরেশনকে সাজেশন দেয়। কারণ রং মেডিসিন দিয়ে তো কোনো কাজ হচ্ছে না।’

‘বিষয়টি স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে জরুরি ভিত্তিতে দেখতে বলেছি। আমাদের প্রতিবেশী দেশেও নাকি এ ওষুধ আছে। সেখান থেকে যতদ্রুত সম্ভব আনার ব্যবস্থা করার জন্য পরামর্শ দিয়েছি,’ যোগ করেন সেতুমন্ত্রী।

ঢাকার দুই মেয়র আগে থেকে সচেতন হলে পরিস্থিতি মোকাবিলা সম্ভব হত কিনা- জানতে চাইলে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘জনস্বার্থের কথা বিবেচনা করে তাদের কার্যক্রম জোরদার করে দায়িত্বশীল হতে বলেছি। বিদ্যমান পরিস্থিতিতে তাদের ভূমিকা আরও দায়িত্বশীল হতে হবে, সেটা আমরা তাদের স্মরণ করিয়ে দিয়েছি।’

গুজব রটিয়ে গণপিটুনির ঘটনা প্রতিরোধে সরকার কঠোর অবস্থান নিয়েছে জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘এ ধরনের ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঠেকাতে দলীয়ভাবে সভা-সমাবেশ করে জনগণকে সতর্ক ও সচেতন করতে নির্দেশ দেয়া হয়েছে। ষড়যন্ত্র চক্রান্তের বিষয় কিনা গভীরভাবে খতিয়ে দেখছি।’

ঢাকাসহ সারাদেশে লাইসেন্স নিয়ে ফিটনেস নবায়ন না করা চার লাখ ৭৯ হাজার ৩২০টি গাড়ির ফিটনেস নবায়নের জন্য দুই মাস সময় বেঁধে দিয়েছেন হাইকোর্ট।

এ বিষয়ে সড়ক পরিবহনমন্ত্রী বলেন, ‘গাড়ির ফিটনেস নবায়নের জন্য দু’মাস সময় নির্ধারণ করে দিয়েছি। উচ্চ আদালতের একটা নির্দেশনা আছে। আমরা বিআরটিএকে এর আগেই নির্দেশনা দিয়েছি। এ ব্যাপারে কর্মপরিকল্পনা তৈরি করে দ্রুত কাজটা শুরু করতে। প্রয়োজনে ছুটির দিনেও এ কাজটি করতে হবে। সপ্তাহের ছয়দিন কাজ করতে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। শিগগিরই তারা কাজ শুরু করছেন।’

তিনি আর বলেন, ‘দেশে সামগ্রিকভাবে বন্যা পরিস্থিতি উন্নতির দিকে থাকলেও কিছু কিছু জায়গায় অবনতি ঘটছে। দেশের মধ্যাঞ্চলে আরও প্লাবনের আশঙ্কা আছে। বন্যায় হাইওয়ে ছাড়া জেলা সড়কগুলো ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। সামনে ঈদ আমি এ নির্দেশনা দিচ্ছি, ঈদের অন্তত এক সপ্তাহ আগে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত সড়কের মেরামত কাজ সম্পন্ন করতে হবে।’

এরশাদের মৃত্যুর পর জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যানের পদ নিয়ে রওশন এরশাদ ও জি এম কাদেরের বিভেদের বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘জাতীয় পার্টি একটা দল, দলের ভেতরে টানাপোড়েন থাকতে পারে। আবার এটার সমাধানও আছে। এটা তাদের নিজেদের ব্যাপার। রওশন এরশাদ ও জি এম কাদের তারা তো দেবর-ভাবি, আমি আশা করি তারা তাদের অভ্যন্তরীণ সমস্যার সমাধানে নিজেরা বসে আলাপ-আলোচনা করে সমাধান করবেন।’

তিনি বলেন, একটা রাজনৈতিক দলে বিভেদ হোক, যতই তারা বিরোধী দল হোক- এটা আমরা চাই না। ঘরোয়া বিবাদ তারা মীমাংসা করে ফেলুক সেটাই আমরা আশা করি।

আরএমএম/এনডিএস/এমএস

টাইমলাইন